Buy this theme? Call now 01710441771
Welcome To Abc24.GA
.Jul 26, 2017

""কুরআন ও বিজ্ঞান""

বিজ্ঞান কিছুদিন আগে জেনেছে যে, চাঁদের নিজস্ব কোন আলো নেই। অথচ সূরা ফুরকানের ৬১ নং আয়াতে পবিত্র কুরআনে এই কথা বলা হয়েছে প্রায় ১৪০০ বছর আগে। বিজ্ঞান মাত্র দুশো বছর আগে জেনেছে যে, চন্দ্র এবং সূর্য নিজ নিজ কক্ষ পথে ভেসে চলে। সূরা আম্বিয়ার ৩৩ নং আয়াতে কুরআনে এই কথা বলা হয়েছে প্রায় ১৪০০ বছর আগে। সূরা কিয়ামাহ’র ৩ ও ৪ নং আয়াতে ১৪০০ বছর আগেই জানানো হয়েছে যে, মানুষের আঙ্গুলের ছাপ দিয়ে মানুষকে আলাদা ভাবে সনাক্ত করা সম্ভব, যা বিজ্ঞান আজ প্রমাণিত বলে ঘোষনা দিচ্ছে। 'বিগ ব্যাং থিওরি' আবিষ্কার হয় মাত্র কয়েক বছর আগে অথচ সূরা আম্বিয়ার ৩০ নং আয়াতে কুরআনে এই কথা বলা হয়েছে প্রায় ১৪০০ বছর আগে। পানিচক্রের কথা বিজ্ঞান আবিষ্কার করেছে কিছুকাল আগে অথচ সূরা যুমার ২১ নং আয়াতে কুরআন এই কথা বলেছে প্রায় ১৪০০ বছর আগে। বিজ্ঞান এই সেদিন জেনেছে লবণাক্ত পানি ও মিষ্টি পানি একসাথে মিশ্রিত হয় না কিন্তু সূরা ফুরকানের ২৫ নং আয়াতে কুরআন এই কথা বলেছে প্রায় ১৪০০ বছর আগে। ইসলাম আমাদেরকে ডান দিকে ফিরে ঘুমাতে উৎসাহিত করেছে আর বিজ্ঞান এখন বলছে ডান দিকে ফিরে ঘুমালে হার্ট সব থেকে ভাল থাকে। ইসলাম মদ পানকে হারাম করেছে ১৪০০ বছর আগে আর চিকিৎসা বিজ্ঞান এখন বলছে মদ পান লিভারের জন্য ক্ষতিকর। ইসলাম শুকরের গোশতকে হারাম করেছে। বিজ্ঞান আজ বলছে শুকরের মাংস লিভার ও হার্টের জন্য খুবই ক্ষতিকর। রক্ত পরিসঞ্চালন এবং দুগ্ধ উৎপাদন এর ব্যাপারে আমাদের চিকিৎসা বিজ্ঞান জেনেছে মাত্র কয়েক বছর আগে অথচ সূরা মুমিনূনের ২১ নং আয়াতে কুরআন এই বিষয়ে বর্ণনা করেছে ১৪০০ বছর আগে। মানুষের 'জন্মতত্ত্ব' 'ভ্রুন তত্ব' সম্পর্কে বিজ্ঞান জেনেছে এই ক'দিন আগে। অথচ সূরা আলাকে কুরআন এই বিষয়ে জানিয়ে গেছে ১৪০০ বছর আগে। 'ভ্রন তত্ত্ব' নিয়ে বিজ্ঞান আজ জেনেছে পুরুষই (সন্তান ছেলে হবে কিনা মেয়ে হবে) তা নির্ধারণ করে। অথচ কুরআন সূরা নজমের ৪৫, ৪৬ নং আয়াতে এবং সূরা কিয়ামাহ’র ৩৭-৩৯ নং আয়াতে এই কথা আমাদেরকে জানিয়েছে ১৪০০ বছর আগে। বিজ্ঞান আজ বলছে, একটি শিশু যখন গর্ভে থাকে তখন সে আগে কানে শোনার যোগ্যতা পায়, তারপর পায় চোখে দেখার। অথচ সূরা নজমের ৪৫, ৪৬ নং আয়াতে এবং সূরা কিয়ামাহ’র ৩৭-৩৯ নং আয়াতে ১৪০০ বছর আগে ভ্রুনের বেড়ে ওঠার স্তরগুলো নিয়েও কুরআন বিস্তর আলোচনা করেছে, যা আজ প্রমাণিত। পৃথিবী দেখতে কেমন? এক সময় মানুষ মনে করত পৃথিবী লম্বাটে, কেউ ভাবত পৃথিবী চ্যাপ্টা, সমান্তরাল অথচ কুরআন ১৪০০ বছর আগে জানিয়ে দিয়েছে পৃথিবী দেখতে অনেকটা উট পাখির ডিমের মত গোলাকার। পৃথিবীতে রাত এবং দিন বাড়া এবং কমার রহস্য মানুষ জেনেছে দুশ' বছর আগে। অথচ সূরা লুকমানের ২৯ নং আয়াতে কুরআন এই কথা জানিয়ে দিয়েছে ১৪০০ বছর আগে!! আসলে পবিত্র আল কুরআনই চিরন্তন সত্য এবং জীবন্ত নির্ভুল বিজ্ঞান। সুবহানআল্লাহ ! আল্লাহু আকবর !